গুগলের আপনার অনলাইনে প্রতিটি কার্যকলাপ রেকর্ড করে রাখে, জানেন কি? | ithelpbd.com
Ithelpbd.com is Bangla Online Tech Community website.

গুগলের আপনার অনলাইনে প্রতিটি কার্যকলাপ রেকর্ড করে রাখে, জানেন কি?

4 views
if you like please share this postShare on Facebook
Facebook
0Share on Google+
Google+
0Tweet about this on Twitter
Twitter
Share on LinkedIn
Linkedin

গুগল সবসময়ই জানতে চায়, আপনি কোথায় যাচ্ছেন, কী করছেন। আপনি যদি তাকে কিছু জানাতে না চান, তবুও সে জেনে যায়।

মোট কথা গুগল আপনাকে সবসময় চোখে চোখে রাখে। সেটা আপনি চাইলেও না চাইলে রাখে। আপনার ওপর নজরদারী করে আপনাকে ব্যবহার করেই।

আপনি অ্যান্ড্রয়েড এমন কী আইওএস অপারেটিং সিস্টেম ব্যবহার করে যা কিছুই করেন না কেন সেটি গুগল সংরক্ষণ রাখে। যদিও তারা সবসময় বলে প্রাইভেসি সেটিংস থাকলে তারা কোন তথ্য নেয় না, এটিও সঠিক নয় বলে অ্যাসোসিয়েট প্রেস বা এপির এক অনুসন্ধানে উঠে এসেছে।

এপির এমন তথ্যের সত্যতা স্বীকার করে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন কম্পিউটার বিজ্ঞান নিয়ে গবেষণা করা ‘মেয়ারস ল্যাব’।

বেশিরভাগ সময়ই গুগল ওই সময়ের লোকেশন ব্যবহারের জন্য অনুমতি চায়। এমনকি যদি এর অ্যাপ যেমন গুগল ম্যাপ ব্যবহার করা হয় তবে প্রতিটি সময়ই এর ন্যাভিগেশন চালু থাকে। আর সবসময় ব্যবহারকারীর স্থান জানিয়ে দিতে পারে। এমন কী আপনি যদি কখনো গুগলকে ‘এগ্রি’ করেন তবে সে গুগল ম্যাপে আপনার হিস্ট্রি পড়ে টাইমলাইনে দেখিয়ে দেয়। সেখানে আপনার দৈনন্দিন সব চলাফেরা রেকর্ড থাকে যা পারে জানিয়ে দেয়।

এভাবে প্রতিটি মিনিটের তথ্য সংরক্ষণ করে গুগল। যা চাইলে পুলিশও ব্যবহার করতে পারে। এমনকী সন্দেহভাজনকে ধরতে এমন রেকর্ড ব্যবহারও করা হয়েছে। গত বছর যুক্তরাষ্ট্রের নর্থ ক্যারোলিনায় একটি খুনের ঘটনা ঘটে। লাশের পাশে একটি ডিভাইস সনাক্ত করা হয়। পরে ওই খুনিকেও ধরতে সক্ষম হয় পুলিশ।

গুগল প্রতিটি মুহূর্তে আপনার লোকেশন সংরক্ষণের জন্য ‘বলে দিচ্ছে’।

গুগল বলছে, ব্যবহারকারীরা চাইলে যে কোন সময় তার লোকেশন সংরক্ষণ করা বন্ধ রাখতে পারে। যদি সেটি বন্ধ থাকে তাহলে সেটি তারা সংরক্ষণ করে না এমনকি শেয়ারও করে না।

তবে এটি সত্য নয় বলেও দাবি তুলেছেন অনেকেই। তারা বলছেন, গুগলের বেশ কিছু অ্যাপ প্রতিটি মুহূর্তের লোকেশন সংরক্ষণ করে থাকে। এটি স্বয়ংক্রিয়ভাবেই যেসব জায়গায় যাওয়া হয় সেগুলোর নামসহ সবকিছুই সংরক্ষণ রাখে।

উদাহরণস্বরূপ গুগল ম্যাপ আপনি কোথায় চালু করছেন তারও স্ন্যাপশট রেখে দেয়। এমন করেই গুগল প্রতিদিন আবহাওয়ার হালনাগাদ করে। কিছু সাধারণ সার্চ থেকে যেমন চকলেট চিপস কুকিজ বা শিশুদের সায়েন্স কিট এসব থেকেও লোকেশন ও আবহাওয়া নির্ণয়ের কাজ করে।

এই প্রাইভেসি ইস্যুটি বিশ্বব্যাপী কয়েক বিলিয়ন অ্যান্ড্রয়েড ডিভাইস এবং শত কোটি আইওএস ডিভাইসে রয়েছে যারা গুগল ম্যাপ অ্যাপে এমন সার্চ করে থাকে।

ব্যবহারকারীর পছন্দগুলি লঙ্ঘন করে তাদের অবস্থানের ডেটা সংরক্ষণ করা বেআইনি বলে জানান প্রিন্সটনের কম্পিউটার বিজ্ঞানী ও ফেডারেল কমিউনিকেশন কমিশন ব্যুরোর সাবেক প্রধান জনাথন মেয়ার।

মেয়ার ল্যাবের এক গবেষক নিশ্চিত করেছেন এপি অনুসন্ধানে পাওয়া বিষয়গুলো। এপি বিভিন্ন ধরনের অ্যান্ড্রয়েড এবং অ্যাপলের আইফোনে যাদের ক্ষেত্রে বিষয়গুলো একই ছিল।

ব্যবহারকারীর অভিজ্ঞতাকে আরও উন্নত করতে গুগল বিভিন্ন সময় নানান পদ্ধতি অবলম্বন করে, এর মধ্যে রয়েছে লোকেশন হিস্ট্রি, ওয়েব এবং অ্যাপের আক্টিভিটি, এমন কী ডিভাইসের লোকেশনও কিছু ক্ষেত্রে দেখা হয় বলে এক বিবৃতিতে জানিয়ে গুগলের এক মুখপাত্র।

সেখানে ওই মুখপাত্র বলেন, আমরা বিষয়টি পরিষ্কার করতে ব্যবহারকারীকে টুলসগুলোর বিস্তারিত জানাই, এমনকী তারা চাইলে যে কোন সময় এটি বন্ধ বা অন রাখতে পারবে। এমনকি তারা চাইলে তাদের হিস্ট্রিগুলো মুছে দিতে পারবে।

আপনার মন্তব্য আমাদের কাছে খুবই গুরুত্বপূন । তাই আপনার মতামত দিন !!

if you like please share this postShare on Facebook
Facebook
0Share on Google+
Google+
0Tweet about this on Twitter
Twitter
Share on LinkedIn
Linkedin